ফুলবাড়ীর ডাঃ আনোয়ার প্রথম আবিষ্কার করলেন রিমোট চালিত পাওয়া টিলার ॥

দিনাজপুর প্রতিনিধি:
দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলায় স্থানীয় ভাবে দেশীয় প্রযুক্তিতে ডাঃ আনোয়ারের তৈরী রিমোট চালিত পাওয়ার টিলারের আনুষ্ঠিানিক উদ্বোধন করেছে,কৃষি অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক গোলাম মোস্তফা।
গত সোমবার বিকেল ৪টায় রিমোট চালিত পাওয়ার টিলার প্রস্তুতকারক ডাঃ আনোয়ারের গ্রামের বাড়ী উপজেলার আলাদিপুর ইউনিয়ানের বাসুদেবপুর গ্রামের মাঠে, রিমোট চালিত পাওয়ার টিলারটি চালিয়ে উদ্বোধন করা হয়। এসময় অনান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেল নির্বাহী অফিসার মোঃ এহতেশাম রেজা,কৃষি কর্মকর্তা এটিএম হামিম আশরাফ,দিনাজপুর জেলা প্রশিক্ষণ কর্মকর্তা নিখিল চন্দ্র বিশ্বাস।
ডাঃ আনোয়ার বলেন,তার তৈরী রিমোট চালিত পাওয়ার টিলার,বাজারের অনান্য পাওয়ার টিলার অপেক্ষা বেশি শক্তি শালী ও জ্বালানী খরচও অনেক কম,সম্পূর্ণ বেশীয় যন্ত্রাংশ নিজের লেদে তৈরী। বাজারের একটি চাষে যোগ্য পাওয়ার টিলার ক্রয় করতে যা খরচ করি তার চেয়ে অর্ধেক মূল্যেতে এই রিমোট চালিত পাওয়ার টিলার বাজারজাত করা সম্ভব হবে। তাছাড়াও এই পাওয়ার টিলারটি রিমোট কন্ট্রোল হওয়ায় শ্রমীকের খরচ বাঁচাবে।
কৃষি অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক গোলাম মোস্তফা বলেন,ডাঃ আনোয়ার পূর্বে হারবেস্টার মেশিন তৈরী করে জাতীয় পুরুস্কার অর্জন করেছেন, বর্তমানে সেই হারবেস্টার মেশিন এই এলাকার ধান কাটা-মাড়া কাজে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। তেমনী এই রিমোট চালিত পাওয়ার টিলারটি কৃষিকাজে নতুন বিপ্লব ডেকে আনবে এবং এই এলাকা ছাড়াও দেশের বিভিন্ন এলাকায় সমৃদ্ধি পাবে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার এহতেশাম রেজা বলেন আমাদের  বিদেশ থেকে কৃষি যন্ত্রংশ আমদানি করতে অনেক টাকা ব্যয় করতে হয়,ডাঃ আনোয়ার এর তৈরী এই মেশিন ক্রয় করলে আমাদের বৈদেশীক মুদ্রা সাশ্রয় হবে। কৃষি কর্মকর্তা এটিম হামিম আশরাফ বলেন তার এই রিমোট চালিত পাওয়ার টিলারটি যাতে দেশের সবার নজরে আসে এই লক্ষে উধর্তন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হবে। ডাঃ আনোয়ার ২০১৩ সালে হারবেস্টার মেশীন তৈরী করে জাতীয় পুরুস্কার পেয়েছেন,আমরা আশা করি তার এই আবিস্কারের ফলে তিনি জাতীয় পুরুস্কারের জন্য  পূর্ণ বিবেচিত হবে।

Share.

Comments are closed.